গর্ভবতী ও প্রসূতি মায়েদের জন্য করনীয়

  • পোস্ট করা হয়েছে অক্টোবর ২৯শে, ২০১৮

১। সন্তান ধারন করেছেন বুঝতে পারলেই ডাক্তারের পরামর্শ নিন।

২। নিয়মত গর্ভকালীন পরীক্ষা করাবেন।

৩। গর্ভকালে সুষম খাবার, নিয়মিত বিশ্রাম ও হালকা ব্যায়াম খুবই প্রয়োজন।

৪। ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী আয়রন ও ক্যালসিয়াম ট্যাবলেট গ্রহন করবেন।

৫। ডাক্তারের পরামর্শ ব্যাতিত কোন প্রকার ঔষধ সেবন করবেন না।

৬। দূরের পথের যাত্রা ও ঝুকিপূর্ণ ভ্রমন থেকে বিরত থাকবেন।

৭। অতিরিক্ত পরিশ্রম ও ভারী কাজ করবেন না।

৮। পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন থাকবেন ও ঢিলে ঢালা পোশাক পরিধান করবেন।

৯। দিনে ২ঘন্টা ও রাতে অন্তত ৮ঘন্টা ঘুমাবেন।

১০। মনকে চিন্তামুক্ত রাখবেন ও সদা হাসিখুশি থাকবেন।

১১। ৭মাসের পর থেকে বাম কাত হয়ে শোবার চেষ্টা করবেন।

১২। ৫ থেকে ৭ মাসের মধ্যে দুটি টিটেনাসের প্রতিষেধক টিকা (টি.টি) নিতে হবে।

১৩। বাচ্চা জন্মের সাথে সাথে অবশ্যই শালদুধ খাওয়াবেন, মনে রাখবেন শালদুধ বাচ্চার প্রথম টিকা।

১৪। ৬মাস বয়স পর্যন্ত আপনার নবজাতক শিশুকে শুধুমাত্র বুকের দুধ খাওয়াবেন।

১৫। প্রসব পরবর্তী সময়ে মায়েদের অবশ্যই সুষম খাবার খেতে হবে ও পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন থাকতে হবে এবং নির্দেশ মত প্রসব পরবর্তী ফলোআপে আসতে হবে

১৬। বাচ্চা প্রসবের সাথে সাথে দীর্ঘ মেয়াদী পরিবার পরিকল্পনা পদ্ধতি গ্রহনের জন্য আগে থেকেই আপনার চিকিৎসকের সাথে আলোচনা করে পদ্ধতিটি নিশ্চিত করুন।

লেখক
ডাক্তার

Askdoctor Info Desk

আপনি আরও দেখতে পারেন
ডাক্তার